Article
Add this post to favorites

আপনি কি ভাবে নিজের বাচ্চার বৃদ্ধি পর্যবেক্ষণ করবেন?

বৃদ্ধি সূচিত করে শরীরের শারীরিক আকারের বৃদ্ধি আর বিকাশ সূচিত করে কোসে ব্যক্তির দক্ষতা আর কাজে উন্নতি।
 

3 mins read

বৃদ্ধি সূচিত করে শরীরের শারীরিক আয়তন বেড়ে যাওয়াকে এবং বিকাশ সূচিত করে কোন ব্যক্তির দক্ষতা আর স্বাভাবিক ক্রিয়ায় উন্নতিকে এরা দুজনে সূচিত করে কোন ব্যক্তির শারীরিক বুদ্ধিগত, আবেগমূলক এবং সামাজিক সুস্থতাকে।

জন্মের সময় থেকে নিয়ে 5 বছর বয়স পর্যন্তকে বলা হয় গঠনমূলক বছর। এইসব বছরগুলিতে, বাচ্চাদের মধ্যে প্রাথমিক মানসিক এবং শারীরিক বিকাশ দেখতে পাওয়া যায়। ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন অনুযায়ী পুষ্টি, স্বাস্থ্যপরিচর্যন এবং পরিবেশ কোন বাচ্চার বৃদ্ধি নির্ণয় করতে এক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

বৃদ্ধি মাপার জন্যে ব্যবহৃত স্থিতিমাপগুলি হল ওজন কিলোগ্রামে এবং উচ্চতা মীটারে। মাথা আর বুকের পরিধ ভারতে আমরা বাচ্চাদের বৃদ্ধি অনুসরণ করার জন্যে ধঘ চাইল্ড গ্রোথ স্ট্যান্ডর্স (2006) ব্যাবহার করি। আপনার বাচ্চার ঘাটতি পরীক্ষা করার জন্যে তার বৃদ্ধি পর্যবেক্ষণ করা হল প্রধানতম প্রয়োজনীয়তা।

ওজন

বাচ্চার বৃদ্ধির সব থেকে সঠিক মাপ হিসাবে ওজনকে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে কারণ এমনকি কয়েক শত গ্রামের পরিবর্তনকেও রেকর্ড করা যায়।

  • এটি ইঙ্গিঁত করে বডি মাস্
  • ডায়রিয়ার মত শৈশবকালিন অসুস্থতার জন্যে পুষ্টিমূলক পরিস্থিতিতে সামান্য পরিবর্তনের প্রতিও এটি অনুভূতি প্রবণ।
  • দ্রুত ওজন কমে যাওয়া ইঙ্গিঁত করে। অপুষ্টির সম্ভাবনাময় ঝুঁকি।

উচ্চতা

  • কোন ব্যক্তির উচ্চতা প্রভাবিত হয় জেনেটিক এবং পরিবেশমূলক বিষয়ের দ্বারা।
  • অপর্যাপ্ত খাবার গ্রহণ এবং/অথবা সংক্রমণ এর কারণে বাচ্চার বৃদ্ধি সহায়তার জন্যে উপলব্ধ নিয়ট্রিয়েন্টস্ কমে যায়। এর ফলে বৃদ্ধির গতি হ্রাস হয়ে যায়।

বৃদ্ধি পর্যবেক্ষণ

  • এটি একটি নিয়মিত পরিমাপ যা আপনাকে আপনার বাচ্চার বৃদ্ধি দেখতে সাহায্য করবে। এই চার্টটি আপনাকে সাহায্য করবে নিজের বাচ্চার বৃদ্ধি এবং উচ্চতাকে পর্যবেক্ষণ করতে।
  • WHO (ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন) অনুযায়ী মেয়ে এবং ছেলেদের জন্যে আলাদা আলাদা বৃদ্ধি চার্ট হয় যা নীচের টেবল্ এ দেখুন।
  • শৈশবঅবস্থায় আপনার বাচ্চা দ্রুত বাড়তে থাকে, তার উচ্চতা এবং ওজন ক্রমাগত বাড়তে থাকে। সেইজন্যে বৃদ্ধির পর্যবেক্ষণ প্রতি মাসে একবার করে প্রয়োজন বাচ্চার 3 বছর বয়স হওয়া পর্যন্ত এবং তারপরে অন্ততঃ 3 মাসে এক বার করে।
  • প্রতিবার বাচ্চার ওজন নেওয়ার সময়ে গ্রোথ চার্ট এ ওজনকে লিখতে হবে এবং এই ভাবে হওয়া পয়েন্টস্ কে একত্রিত করে একটি লাইন তৈরী করা যেতে পারে যাকে বলা হয় গ্রোথ কার্ড। যদি আপনার বাচ্চার নিয়মিত ভাবে ওজন বাড়তে যাকে তাহলে লাইনটি উপরের দিকে উঠতে থাকবে।
  • যদি গ্রোথ কার্ড উপরের দিকে না সরতে থাকে তাহলে ডাক্তারে সাথে যোগাযোগ করুন।
  • মনে রাখবেন একটি বাচ্চার বৃদ্ধির একমাত্র ইঙ্গিতেকারক উচ্চতা অথবা ওজন নয়। তার জেনেটিক্স, এথ্নিসিটিও খুব মূখ্য ভূমিকা পালন করে।
How shopuld you manage your childs growth 1

আপনি কি ভাবে নিজের বাচ্চার বৃদ্ধি পর্যবেক্ষণ করবেন

 

  • আপনি বাড়ীতে বসে আপনার বাচ্চার বৃদ্ধি মাপতে পারেন
  • এক দৃঢ় সমান মেঝের ওপর রাখা একটি ডিজিটল স্কেল ব্যাবহার করুন
  • জুতো এবং জামাকাপড় খুলে বাচ্চাটিকে স্কেলের মাঝখানে বসান নিকটবর্তী ডেসিমল ফ্র্যাকশনে ওজন রেকর্ড করুন এবং তাকে নীচে দেওয়া গ্রোথ চার্টের ওপর লিখুন
  • দু বছরের বেশী বয়সী বাচ্চাদের জন্যে উচ্চতাকে মাপা যেতে পারে এক মেজারিং রড অ্যান্থরোপোমীটার ব্যাবহার কোরে যেখানে বাচ্চার সর্বাধিক উচ্চতাকে মাপা হয় রড এর লাইনের মধ্যে দাঁড় করিয়ে। 

 

How-Should-you-monitor-2
How-Should-you-monitor--3